খুলনায় ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় পাঁচজনের ফাঁসি
প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০১৯, ১৫:২১
খুলনায় ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় পাঁচজনের ফাঁসি
খুলনা প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

খুলনায় ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় পাঁচজনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। মহানগরীর বুড়ো মৌলভীর দরগা এলাকায় এক্সিম ব্যাংক কর্মকর্তা পারভীন সুলতানাকে ধর্ষণ এবং বৃদ্ধ বাবা ইলিয়াছ চৌধুরীসহ তাকে হত্যা মামলায় পাঁচ আসামিকে মৃত্যুদণ্ডের এ আদেশ দেন আদালত।


মঙ্গলবার (১৬ জুলাই) দুপুরে খুলনার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৩ এর বিচারক মো. মহিদুজ্জামান এ রায় ঘোষণা করেন।


সাজাপ্রাপ্ত আসামিরা হচ্ছেন-সাইফুল ইসলাম পিটিল, তার ভাই শরিফুল ইসলাম, মো. লিটন, আজিজুর রহমান পলাশ ও আবু সাঈদ। রায় ঘোষণার পর চার আসামিকে আদালত থেকে কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়। আসামি শরিফুল ঘটনার পর থেকেই পলাতক রয়েছেন।


এদিন রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন বিশেষ পিপি অ্যাডভোকেট ফরিদ আহমেদ। এছাড়া তাকে সহযোগিতা করেন বাংলাদেশ মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থার জেলা সমন্বয়কারী অ্যাডভোকেট মো. মোমিনুল ইসলাম ও অ্যাডভোকেট কাজী সাব্বির আহমেদ।


জানা গেছে, আসামিরা ২০১৫ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর রাতে বুড়ো মৌলভীর দরগা এলাকার ৩ নম্বর সড়কের ইলিয়াছ চৌধুরীর ‘ঢাকাইয়া হাউজ’ নামের বাড়িতে যায়। বাড়িতে গিয়ে তারা বৃদ্ধ ইলিয়াছ চৌধুরীকে শ্বাসরোধে হত্যা করে। এরপর পাঁচজন মিলে পারভীনকে ধর্ষণ করে তাকেও শ্বাসরোধে হত্যা করে। এরপর লাশ গুম করার জন্য সেফটিক ট্যাংকে ফেলে দেয়।


আসামিরা ওই বাড়ি থেকে স্বর্ণালংকার ও নগদ টাকাসহ বেশ কিছু মালামাল লুট করে। আসামিরা এর আগে থেকে পারভীনকে উত্যক্ত করে আসছিল। কিন্তু তিনি এর করার প্রতিবাদ করায় ক্ষিপ্ত হয়ে আসামিরা এ ঘটনা ঘটায়।


নিহত ইলিয়াছ চৌধুরীর ছেলে রেজাউল আলম চৌধুরী বিপ্লব বাদী হয়ে ২০ সেপ্টেম্বর লবণচরা থানায় হত্যা এবং ২২ সেপ্টেম্বর ধর্ষণ মামলা করেন।


২১ সেপ্টেম্বর আসামি মো. লিটন আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। এছাড়া আরেক আসামি সাঈদও আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়।


মামলার তদন্ত কর্মকর্তা লবণচরা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) কাজী বাবুল ২০১৬ সালের ২৪ মার্চ ধর্ষণ মামলা এবং ৯ মে হত্যা মামলায় আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। হত্যা মামলায় ৩৭ সাক্ষীর মধ্যে ২২ জন ও ধর্ষণ মামলায় ৩৭ সাক্ষীর মধ্যে ২৮ জন সাক্ষ্য দেয়।


রায় ঘোষণার পর মামলার বাদী রেজাউল আলম চৌধুরী বিপ্লব জানান, এ রায়ে তিনি সন্তুষ্ট। তিনি দ্রুত রায় কার্যকরের দাবি জানান।


বিবার্তা/রবি

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanews24@gmail.com ​, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com