কক্সবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা মানব পাচারকারীসহ নিহত ৩
প্রকাশ : ১৪ মে ২০১৯, ১০:০৪
কক্সবাজারে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা মানব পাচারকারীসহ নিহত ৩
কক্সবাজার প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

কক্সবাজার শহর ও টেকনাফ উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ তিনজন নিহত হয়েছে। এদের মধ্যে একজন চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী ছৈয়দুল মোস্তফা প্রকাশ ভুলু ও অপর দুইজন রোহিঙ্গা মানব পাচারকারী।


ভুলু কক্সবাজার শহরের পাহাড়তলী এলাকার জহির হাজির ছেলে। তার বিরুদ্ধে থানায় মাদক, অস্ত্রসহ একাধিক মামলা রয়েছে। সোমবার রাত আড়াইটার দিকে পাহাড়তলীর কাটা পাহাড় এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।


ঘটনাস্থল থেকে ৪’শ পিস ইয়াবা, একটি দেশীয় তৈরি বন্দুক, দুই রাউন্ড কার্তুজ ও ছয়টি খালি খোসা উদ্ধার করেছে পুলিশ।


কক্সবাজার সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন খন্দকার বলেছেন, গ্রেফতারের পর স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ভুলুকে নিয়ে কাটা পাহাড়ে অস্ত্র উদ্ধারে যায় পুলিশ। এ সময় লক্ষ্য করে ভুলুর সন্ত্রাসী বাহিনী গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়ে।


একপর্যায়ে সন্ত্রাসীরা পিছু হটলে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ভুলুকে উদ্ধার করা হয়। পরে তাকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। ভুলু কক্সবাজার শহরের শীর্ষ সন্ত্রাসী। শহরের পূর্ব পাহাড়তলী এলাকায় সশস্ত্র শক্তিশালী বাহিনী গঠন করে দীর্ঘদিন ধরে সে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়ে আসছিল।


এদিকে টেকনাফ উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে মানবপাচারকারী দুই রোহিঙ্গা নিহত হয়েছে। সোমবার রাত ২টার দিকে টেকনাফ শামলাপুর মেরিনড্রাইভে এ ঘটনা ঘটে।


বন্দুকযুদ্ধে নিহতরা হলো- টেকনাফের শামলাপুর রোহিঙ্গা শিবিরের বাসিন্দা আজিম উল্লাহ (২০) ও উখিয়ার জামতলি রোহিঙ্গা শিবিরের আবদুস সালাম (৫২)। এ ঘটনায় চার পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। অভিযানের সময় দু’টি দেশীয় অস্ত্র (এলজি), ১০টি গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।


টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাস বলেন, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ সেখানে অভিযান পরিচালনা করে। এ সময় পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় তারা। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। তখন পালানোর সময় দু’জন গুলিবিদ্ধ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে আনা হলে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।


ওসি বলেন, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। নিহতরা তালিকাভুক্ত মানবপাচারকারী ছিল।


বিবার্তা/জাকিয়া

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com