কুয়াকাটা সৈকতে কুকুর আতঙ্কে পর্যটকেরা
প্রকাশ : ০৭ জুলাই ২০১৮, ১৬:০২
কুয়াকাটা সৈকতে কুকুর আতঙ্কে পর্যটকেরা
কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

পটর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটায় আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে গেছে বেওয়ারিশ কুকুরের উপদ্রব। এর ফলে ভয়ভীতির মধ্যে রয়েছে দেশ-বিদেশ থেকে আগত পর্যটকরা। বেশ কয়েক মাস ধরে সৈকতের বিভিন্ন পয়েন্টে ওইসব বেওয়ারিশ কুকুরের উপদ্রব থাকলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ উদাসীন রয়েছে। এসব কুকুরের দল সৈকতের বিভিন্ন পয়েন্টে বিচরণ করছে। তবে পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষার স্বার্থে বেওয়ারিশ কুকুরগুলো নিধন জরুরি বলে স্থানীয় ও পর্যটকরা জানিয়েছেন।


সৈকতের বিভিন্ন স্থান ঘুরে দেখা গেছে, ২০টির বেশি বেওয়ারিশ কুকুর এদিক-ওদিক ঘুরছে। জোয়ারে ভেসে আসা পচা মাছ খাচ্ছে। সৈকতের জিরো পয়েন্ট, শুঁটকী পল্লী, গঙ্গামতিসহ একাধিক স্থানে একই অবস্থা দেখা গেছে। সৈকত লাগোয়া ঝাউবাগানের ভেতরেও কুকুরের বিচরণ রয়েছে। অনেক সময় বেপরোয়া কুকুর পর্যটকদের আক্রমণ করছে। এছাড়া দৃষ্টি নন্দন লাল কাকড়াগুলোও ওইসব কুকুরে মেরে ফলছে বলে স্থানীয়দের অভিযোগ।


পর্যটক মাহিমা আক্তার শেলি বলেন, তিনি সকালে হাঁটতে সৈকতে নেমেছিল। কিন্তু বেওয়ারিশ কুকুরের জন্য স্বাভাবিক হাঁটাচলা করা যাচ্ছে না। সর্বক্ষণ কুকুরের আতঙ্কে ছিলাম।


ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী মো. মান্নান জানান, বেশ কিছুদিন ধরে সৈকতে বেওয়ারিশ কুকুরের উপদ্রব বেড়েছে। ওইসব কুকুরের করণে পর্যটকদের আতঙ্কে থাকতে হয়।


ফটোগ্রাফার আলী হোসেন জানান, কিছু কিছু সময় পর্যটকরা সৈকতে ছবি তোলার মুহূর্তে কুকুরের উৎপাত দেখা দিলে তারা ভয় ভীতিতে থাকে। এ সময় ছবি তোলার মুড থাকে না।


কুয়াকাটা পৌর মেয়র আব্দুল বারেক মোল্লা জানান, কুকুর মারা সম্পূর্ণ ভাবে নিষিদ্ধ। তার পরও পৌরসভার পক্ষ থেকে নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চলছে।


বিবার্তা/উত্তম/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com