অদৃশ্য হওয়ার প্রযুক্তি আসছে!
প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০১৮, ১৮:২৫
অদৃশ্য হওয়ার প্রযুক্তি আসছে!
বিবার্তা ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

অদৃশ্য হতে কে না চায়! আমাদের কমবেশি সবারই একটা সুপ্ত বাসনা রয়েছে অদৃশ্য হওয়ার। এই ইচ্ছেটাকে মূলধন করেই ১৮৯৭ সালে এইচ. জি. ওয়েলস লিখেছিলেন ‘দি ইনভিজিবল ম্যান’ নামের কল্পবিজ্ঞান উপন্যাসটি। তার পর থেকে ইউরোপীয়-আমেরিকান সাহিত্যে বার বার হানা দিয়েছে অদৃশ্য মানুযের আখ্যান। বাংলা সাহিত্যেও মণিলাল গঙ্গোপাধ্যায়ের লেখা ‘কায়াহীনের কাহিনী’ আজও পাঠকের আদর পায়। সবার উপরে আছেন জে. কে. রাওলিং ; তাঁর হ্যারি পটার সিরিজে ‘ইনভিজিবল ক্লোক’-এর কথা লিখে। সেটা এমনই এক আলখাল্লা, যা গায়ে চাপালেই ব্যস্! আপনি এক্কেবারে ভ্যানিশ!


বিজ্ঞানীরা অনেক দিন ধরেই সচেষ্ট ছিলেন অদৃশ্য হওয়ার একটা উপায় বের করতে। আলোর কারসাজি ঘটিয়ে কীভাবে কোনো কিছুকে অদৃশ্য করে ফেলা যায়, তা নিয়ে চলছিল গবেষণা। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ‘মিরর’-এর প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, সেই কাজে অনেক দূর এগিয়েছেন কানাডাবাসী বিজ্ঞানী হোসে আজানা ও তাঁর গবেষক দল।


আজানা বলেন, আমরা কোনো বস্তুকে দেখতে পাই তার গায়ে আলোর প্রতিফলন থেকেই। আমাদের গবেষণায় আমরা এই কাজটাই করতে চেয়েছি, যাতে আলো কোনো বস্তু থেকে প্রতিফলিত হয়ে ফিরে না এসে তা ভেদ করে চলে যায়।


বিজ্ঞানী হোসে আজানা ও তাঁর গবেষক দল এমন কোনো আচ্ছাদন তাঁরা তৈরি করতে চাইছেন, যা কোনো ত্রিমাত্রিক বস্তুর উপরে চাপা দিলে তাঁদের উদ্দেশ্য পূরণ হয়। আজানার মতে, কোনো সবুজ রংয়ের বস্তুকে অদৃশ্য করতে হলে সেই আচ্ছাদন আলোকে প্রথমে নীল রংয়ে পরিণত করবে, যাতে তা বস্তুকে ভেদ করে চলে যায়। তার পরে তা আবার সবুজে পরিণত হবে।


এ পদ্ধতিতে ফাইবার অপটিক লাইন দিয়ে ডেটা ট্রান্সমিশনও সহজ হবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট বিজ্ঞানীরা। গবেষক দলের সদস্য লুইস রোমেরো কোর্টেস জানিয়েছেন, তাঁদের উদ্দেশ্য আলোকে বস্তুর মধ্য দিয়ে চালনা করানো। এই কাজে তাঁরা প্রায় সাফল্যের সামনে।


তাহলে কি সেদিন আসতে বেশি দেরি নেই, যখন যে কেউ অদৃশ্য হওয়ার আলখাল্লা পরে বিভিন্ন গ‌োলমাল ঘটাবে! সূত্র : এবেলা


বিবার্তা/হুমায়ুন/মৌসুমী

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com