মেলায় ডিজিটাল মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস
প্রকাশ : ১৪ ডিসেম্বর ২০১৭, ১১:২৯
মেলায়  ডিজিটাল মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

ল্যাপটপ ও ল্যাপটপের আনুসঙ্গিক গ্যাজেট দেখার ও কেনার সুযোগ করে দিতে রাজধানীতে আজ শুরু হলো দেশের সবচেয়ে বড় প্রযুক্তিপণ্যের আসর ‘টেকশহর ল্যাপটপ মেলা-২০১৭’।


বিজয়ের মাসে তথ্যপ্রযুক্তি পণ্যের এমন মেলায় মুক্তিযুদ্ধের সময়কার গণহত্যার ইতিহাস ডিজিটাল মাধ্যমে তুলে ধরবে ‘১৯৭১ : গণহত্যা-নির্যাতন আর্কাইভ ও জাদুঘর’।


প্যাভিলিয়নে থাকবে একাত্তরে দেশের মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন সংঘটিত বিভিন্ন গণহত্যা এবং সেগুলো নিয়ে বিভিন্ন ইতিহাস ও ছবি। তবে সেখানে থাকছে তরুণ প্রজন্মকে জানানোর জন্য প্রযুক্তির সহায়তায় সেসব ইতিহাস তুলে ধরার ব্যবস্থা।


এই গণহত্যা জাদুঘর দেশব্যাপী নানা কার্যক্রম পরিচালনা করছে। যার মধ্যে গহত্যার বিস্মৃত স্থানকে তুলে আনার জন্য জেলাভিত্তিক গণহত্যা-নির্যাতন, বধ্যভূমি, ও গণকবর চিহ্নিতকরণ। গণহত্যা-নির্যাতন নিয়ে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় ও আধুনিক অনলাইন ও অফলাইন আর্কাইভ গড়ে তোলা।


শিশু-কিশোরদের নিয়ে নিয়মিত মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক ইন্টারঅ্যাকটিভ প্রদর্শনী, প্রতিযোগিতার আয়োজন করা। গণহত্যাস্থলকেন্দ্রিক প্রত্যক্ষদর্শীদের সাক্ষ্যভিত্তিক গ্রন্থের ভিত্তিতে গণহত্যা-নির্যাতন নির্ঘন্ট, শহীদ স্মৃতি গ্রন্থ প্রকাশ করা।


গণহত্যা-নির্যাতন নিয়ে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক সেমিনার এবং শহিদ স্মৃতি বক্তৃতার আয়োজন করা। সারা বাংলাদেশে হাতে-কলমে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে স্থানীয়ভাবে মুক্তিযুদ্ধের গবেষক তৈরি করা। তরুণ প্রজন্মের মধ্যে মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে চর্চা ও আলোচনা বাঁচিয়ে রাখার জন্য ইয়ুথ প্ল্যাটফর্ম তৈরি করা। বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে সংঘটিত গণহত্যার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি আদায়ে অ্যাডভোকেসি করা।


১৪ ডিসেম্বর শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে মেলায় গণহত্যা প্যাভিলিয়নে থাকছে নানা আয়োজন। আর এই আয়োজন চলতে থাকবে ১৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত।


‘শোক থেকে শক্তি, প্রযুক্তিতে মুক্তি’ স্লোগান নিয়ে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে শুরু হওয়া এই আসর চলবে শনিবার পর্যন্ত।


আয়োজনে অংশ নিচ্ছে দেশ-বিদেশের শীর্ষস্থানীয় প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা ও বিপণনকারী নানা প্রতিষ্ঠান।


মেলায় একটি মেগা-প্যাভিলিয়ন, পাঁচটি স্পন্সর প্যাভিলিয়ন, ১৪টি মিনি প্যাভিলিয়ন ও ২৭ স্টল থাকছে। মেলায় অংশগ্রহণকারীরা সর্বশেষ প্রযুক্তির পণ্য প্রদর্শন ও বিক্রির সঙ্গে মূল্যছাড় ও উপহার দেবে।


মেলার প্রধান পৃষ্ঠপোষক নিউজ পোর্টাল টেকশহরডটকম (www.techshohor.com) । সহ-পৃষ্ঠপোষক হিসেবে রয়েছে এসার, আসুস, ডেল, এইচপি, লেনোভো। টিকিট বুথ স্পন্সর আরওজি। নলেজ পার্টনার হিসেবে রয়েছে এডুমেকার।


প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত এই মেলা চলবে। মেলায় প্রবেশ মূল্য ৩০ টাকা। তবে স্কুলের শিক্ষার্থীরা ইউনিফর্ম পরিহিত অবস্থায় কিংবা পরিচয়পত্র প্রদর্শন করে বিনামূল্যে প্রবেশ করতে পারবে। প্রতিবন্ধীরাও বিনামূল্যে প্রবেশের এই সুযোগ পাবেন।


বিবার্তা/উজ্জ্বল

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com