‘খাদ্যে ভেজাল ও নকল ওষুধ প্রস্তুতকারী মানুষ হত্যাকারী’
প্রকাশ : ০৬ জুলাই ২০১৯, ১৫:২২
‘খাদ্যে ভেজাল ও নকল ওষুধ প্রস্তুতকারী মানুষ হত্যাকারী’
বিবার্তা ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

গবেষক ও কলামিস্ট সৈয়দ আবুল মকসুদ বলেছেন, যারা খাদ্যে বিষ প্রয়োগ করে লাখ লাখ মানুষকে তিলে তিলে মারছে, আবার যারা নকল ওষুধ প্রস্তুত করে পয়জনিংয়ের মাধ্যমে মানুষকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দিচ্ছে, তারা উভয়ই হত্যাকারী।


জাতীয় প্রেসক্লাব চত্বরে শনিবার চ্যারিটি মানবকল্যাণ সোসাইটি অব বাংলাদেশ আয়োজিত ‘খাদ্যে ভেজাল ও নকল ওষুধ প্রস্তুতকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি’তে এক মানববন্ধনে এসব কথা বলেন তিনি।


আবুল মকসুদ বলেন, খাদ্যে ভেজাল ও নকল ওষুধ প্রস্তুতকারীর সঙ্গে যারা জড়িত, তারা ফৌজদারি অপরাধে অভিযুক্ত। তাদের বিচারের আওতায় এনে সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড প্রদান করতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে এ ব্যাপারে কঠোর হতে হবে। না হলে এ ধরনের অপরাধ থেকে জাতির মুক্তি অসম্ভব হয়ে পড়বে।


তিনি বলেন, খাদ্যে ভেজাল ও নকল ওষুধ প্রস্তুতকারী ব্যক্তিগত মুনাফা লাভের আশায় মানবজাতিকে হুমকির মুখে ফেলে দিয়েছে।


মানববন্ধনে প্রধান বক্তা বাংলাদেশ অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট ফোরামের (বোয়াফ) সভাপতি কবীর চৌধুরী তন্ময় বলেন, খাদ্যে ভেজাল ও নকল ওষুধ প্রস্তুতকারী ব্যক্তি দেশ ও জাতির শত্রু। তারা ব্যক্তিগত মুনাফার লোভে এ দেশের জনসাধারণকে পয়জনিংয়ের মাধ্যমে ধীরে ধীরে হত্যায় লিপ্ত রয়েছে।


তিনি বলেন, সরকারের উচিত রাষ্ট্রযন্ত্রগুলোর দক্ষতা বাড়ানোর পাশাপাশি এ ধরনের অপরাধের যাতে পুনরাবৃত্তি না ঘটে, তার মনিটরিং ব্যবস্থা জোরদার করা। পাশাপাশি ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে অপরাধীর মৃত্যুদণ্ড বা যাবজ্জীবন কারাদণ্ড অথবা ১৪ বছর কারাদণ্ডের বিধান নিশ্চিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া।


মানববন্ধনে জানানো হয়, শুধু খাদ্যে ভেজালের কারণে দেশে প্রতি বছর প্রায় ৩ লাখ লোক ক্যান্সার, ডায়াবেটিসে ১ লাখ ৫০ হাজার, কিডনি রোগে ২ লাখ মানুষ আক্রান্ত হচ্ছে। এছাড়া গর্ভবতী মায়ের শারীরিক জটিলতাসহ গর্ভজাত বিকলাঙ্গ শিশুর সংখ্যা দেশে প্রায় ১৫ লাখ।


কেমিক্যালমিশ্রিত বা ভেজাল খাদ্যের কারণে পেটব্যথা, বমি হওয়া, মাথাঘোরা, বদ হজম, শরীরে ঘামের মাত্রা বেড়ে যাওয়া-কমে যাওয়া, এলার্জি, অ্যাজমা, চর্মরোগ, স্ট্রোক, কিডনি ফেলিউরসহ মানবদেহে নানা সমস্যা সৃষ্টি হয়।


মানববন্ধন কর্মসূচি সঞ্চালনা করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আলী আকবর ও যুগ্ম সম্পাদক আলাউদ্দিন আজাদ।


সংগঠনের সভাপতি এম নূরুদ্দিন খানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন- রাজনৈতিক বিশ্লেষক ও কলামিস্ট বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী, আইনজীবী মাহবুবুর রহমান, বিএফইউজের নির্বাহী সদস্য খায়রুজ্জামান কামাল, সিনিয়র সাংবাদিক শরিফুল ইসলাম বিলু, বাকশালের মহাসচিব জহিরুল ইসলাম কাঈয়ূম, আসক ফাউন্ডেশনের পরিচালক শাহবুদ্দিন, সংগঠনের সিনিয়র সহ-সভাপতি আজিজ মোল্লা, সহ-সভাপতি বোরহান উদ্দিন, শফিকুল ইসলাম পিন্টু, মোহাম্মদ ইলিয়াস, জাকির হোসেন, আকাশ খান, রশিদ ফলান প্রমুখ। -বিজ্ঞপ্তি


বিবার্তা/রবি/জাকিয়া

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com