‘দেশে ভয়াবহ বন্যার শঙ্কা নেই’
প্রকাশ : ১৫ জুলাই ২০১৯, ১২:৪৫
‘দেশে ভয়াবহ বন্যার শঙ্কা নেই’
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

দেশের কয়েকটি জেলায় বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে। ফলে ৮৮ কিংবা ৯৮-এর বন্যা পরিস্থিতির পুনরাবৃত্তি ঘটতে যাচ্ছে কি-না সে আশঙ্কা করছেন দেশবাসী।


তবে বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র এবং বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড (বাপাউবো) সে শঙ্কা উড়িয়ে দিয়েছে। কর্মকর্তারা বলছেন, দেশে বন্যা পরিস্থিতি অবনতি হলেও ’৮৮ কিংবা ’৯৮-সালের মতো ভয়াবহ বন্যার আশঙ্কা নেই।


সাধারণত গঙ্গা-ব্রহ্মপুত্র-মেঘনা অববাহিকার পানি একযোগে বাড়লে বড় বন্যার পরিস্থিতি তৈরি হয়। এবার সে শঙ্কা মনে না করে বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র বলছে, আপাতত তিন অববাহিকায় একই সঙ্গে পানি বাড়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। তাই বড় কোনো বন্যারও আশঙ্কা নেই।


টানা বৃষ্টি ও উজানের ঢলে হু হু করে বেড়েছে যমুনা নদীর পানি। এতে বন্যার আশঙ্কায় দিন পার করেছেন দেশের উত্তরাঞ্চলের মানুষ। অন্যদিকে সুরমা-কুশিয়ারার পানিতে প্লাবিত দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চল। সব মিলিয়ে ১৩ নদীর ২৩টি পয়েন্টে পানি বিপদসীমা অতিক্রম করায় আক্রান্ত দেশের ১৫টি জেলা। আশঙ্কা করা হচ্ছে এ পরিস্থিতি আরো অবনতির দিকে যাবে।


যমুনার পানি বাড়ার প্রভাবে পদ্মায়ও পানি বাড়ার আশঙ্কার কথা জানিয়েছে বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র। তাদের তথ্য অনুযায়ী দু-এক দিনের মধ্যে পদ্মা নদীর গোয়ালন্দ ও ভাগ্যকূল পয়েন্টে বিপদসীমার ওপর দিয়ে পানি প্রবাহিত হতে পারে। এতে আক্রান্ত হবে মধ্যাঞ্চলও।


রাজধানীর আশপাশের এলাকা বন্যা আক্রান্ত হলেও বড় বিপদের আশঙ্কা নেই। এ ছাড়া চট্টগ্রাম, কক্সবাজার ও বান্দরবানে বন্যা পরিস্থিতি উন্নতির দিকে বলেও জানায় বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র।


আবহাওয়া অধিদফতর জানায়, জুলাই মাসে সারা দেশে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত হবে। আর দক্ষিণাঞ্চলে স্বাভাবিক অপেক্ষা বেশি বৃষ্টিপাত হবে। বঙ্গোপসাগরে ২ থেকে ৩টি বর্ষাকালীন লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে। এর অন্তত একটি নিম্নচাপে পরিণত হবে।


দৈনিক গড় বাষ্পীভবন ৩ দশমিক ২৫ মিলিমিটার থেকে ৪ দশমিক ২৫ মিলিমিটার এবং গড় উজ্জ্বল সূর্যকিরণ দেবে ৫ দশমিক ৫ ঘণ্টা থেকে ৬ দশমিক ৫ ঘণ্টা।


সংস্থাটি আগস্টের পূর্বাভাসে জানায়, দেশব্যাপী স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত হবে। তবে বঙ্গোপসাগরে ১ থেকে ২টি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে।


বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডে (বাপাউবো) বন্যা পূর্বাভাস ও সতর্কীকরণ কেন্দ্র বলছে, দেশের উত্তরাঞ্চল ও উত্তর-পূর্বাঞ্চলের বর্তমানে ভয়ঙ্কর বন্যা হওয়ার সুযোগ নেই। তবে উত্তর-পূর্বাঞ্চলের সুরমা ও কুশিয়ারা নদীর পানি বাড়ছে।


জুলাইয়ের মধ্য ও শেষভাগে মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর প্রবলভাবে সক্রিয় হলে বৃষ্টিপাত বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। একই কারণে ভারতের আসাম, মেঘালয়ে বৃষ্টিপাত বাড়লে পাহাড়ি ঢলে দেশের উত্তর ও উত্তর-পূর্বাঞ্চলের নদ-নদীর পানিও বাড়বে।



বিবার্তা/রবি

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com